“মুখ্যমন্ত্রী ও তৃণমূল সাংসদদেরও দিল্লিতে আসতে হবে”; বাংলায় ভোট পরবর্তী হিংসা নিয়ে হুমকি বিজেপি সাংসদ পরভেশ সাহিব সিংহের

ছবি সৌজন্যে পারভেশ সাহিব সিংহের টুইটার পেজ।

টিডিএন বাংলা ডেস্ক: রাজ্য বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা হওয়ার পর থেকেই রাজ্যের বিভিন্ন জেলায় তৃণমূলের কর্মী সমর্থকদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাস চালানোর অভিযোগে সরব হয়েছে বিজেপি। কোথাও নৃশংস ভাবে বিজেপি কর্মীকে খুনের অভিযোগ করা হচ্ছে তো কোথাও অভিযোগ, তৃণমূলের কর্মীরা বিজেপি কর্মী সমর্থকদের বাড়ি, দোকান ভাঙচুর করেছে এমনকি, জ্বালিয়ে দেওয়া হয়েছে বিজেপির দলীয় কার্যালয়। ইতিমধ্যেই এই বিষয় নিয়ে রাজ্যপালের দ্বারস্থ হয়েছে বিজেপি। অন্যদিকে বিজেপির বিরুদ্ধে পাল্টা অভিযোগ নিয়ে সরব হয়েছেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী রাজ্যপাল জগদিপ ধনখরকে ফোন করে ভোট পরবর্তী বাংলায় রাজনৈতিক হিংসার ঘটনা নিয়ে ক্ষোভ ও উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। নিজেই টুইট করে একথা জানিয়েছেন রাজ্যপাল। শুধু তাই নয়, সোমবারই কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফ থেকে ভোট পরবর্তী হিংসাত্মক ঘটনার বিস্তারিত রিপোর্ট চেয়ে পাঠানো হয়েছে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে। এর পরিপ্রক্ষিতে শান্তি বজায় রাখার আবেদন করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এই পরিস্থিতিতে এবার আরো এক ধাপ এগিয়ে টুইট করে তৃণমূল সাংসদদের ও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে সরাসরি হুমকি দিলেন বিজেপি সাংসদ পরভেশ সাহিব সিংহ।

বিজেপির ওই সাংসদের অভিযোগ, বাংলায় নির্বাচনে জিতেই তৃণমূলের গুন্ডারা বিজেপির কর্মীদের খুন করছে। বিজেপি কর্মীদের গাড়ি ভাঙচুর করা হচ্ছে, ঘরে আগুন লাগিয়ে দেওয়া হচ্ছে। সেইসঙ্গে তাঁর হুমকি, “খেয়াল রাখবেন, তৃণমূলের সাংসদ, মুখ্যমন্ত্রী, বিধায়কদের কিন্তু দিল্লি আসতে হবে। আমি আপনাদের সতর্ক করছি। নির্বাচনে হার-জিত হতে পারে কিন্তু খুন নয়।” নিজের এই ট্যুইটে বিজেপি সাংসদ পরভেশ সাহিব সিংহ তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে ট্যাগ করেছেন।