গ্রামীন এলাকায় পুজোতে নতুন বস্ত্র উপহার ভারত সেবাশ্রম সঙ্ঘের 

নিজস্ব সংবাদদাতা, টিডিএন বাংলাঃ বাংলা জুড়ে শুরু হয়েছে বাঙালী হিন্দুদের সবচেয়ে বড় উৎসব দুর্গাপূজার উৎসব। চলছে বিভিন্ন রকমের কেনাকাটা পালা। কিন্তু অসহায় মানুষগুলো যাদের নুন আনতে পান্তা ফুরায় অবস্থা তারা কি নতুন জামাকাপোড় পরবে না। এই চিন্তা থেকেই গ্রামের অসহায় গরিব পরিবারগুলোর হাতে পূজা উপলক্ষে বস্ত্র তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া। ‘ভারত সেবাশ্রম সঙ্ঘ’ পরিচালিত ‘সিদ্ধিবেড়িয়া প্রনবানন্দ গ্রামীন সেবা কেন্দ্রে’র উদ্যোগে দুর্গা পুজো উপলক্ষে গরীব ও পিছিয়ে পড়া মানুষদের মধ্যে তুলে দেওয়া হল নতুন বস্ত্র। মহা সপ্তমী ও অষ্টমির পুন্যলগ্নে ৭৩৪ জন নারী পুরুষ ও শিশুদের নতুন বস্ত্র তুলে দেন ‘ভারত সেবাশ্রম সঙ্ঘে’র স্বেচ্ছাসেবক সতিনাথ হালদার, কুল্পি ব্লকের বিডিও দেবর্ষি মুখার্জি, পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি চিত্তরঞ্জন হালদার, ব্লক সমন্বয় কমিটির সম্পাদক  পুর্নেন্দু হালদার, প্রবাসী বাঙালি ও আমেরিকার নীউ জার্সি স্টেট কলেজের  অধ্যাপক জয়দীপ চ্যাটার্জি, অ্যাডভোকেট তপন বিশ্বাস  প্রমুখ। ভারত সেবাশ্রম সঙ্ঘের প্রধান সম্পাদক স্বামী বিশ্বাত্মানন্দ মহারাজ বলেন, “দক্ষিন ২৪ পরগনার বিস্তির্ন এলাকায় নানা সেবা মুলক কাজ করছে ‘সিদ্ধিবেড়িয়া প্রনবানন্দ গ্রামীন সেবা কেন্দ্র’।” সিদ্ধিবেড়িয়া ছাড়াও আসপাসের প্রায় ৩০ টি গ্রামে সঙ্ঘের পক্ষ থেকে এদিন মহিলাদের নতুন কাপড় ও শিশুদের নতুন বস্ত্র তুলে দেওয়া হয়। এদিনের এই বস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত অতিথিগণ ভারত সেবাশ্রম সংঘের এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানান। তাদেরকে এ ধরনের সমাজসেবামূলক কাজে আরো বেশি বেশি করে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান। ভারত সেবাশ্রম সংঘের এই বস্ত্র বিতরণের ফলে হাসি ফুটেছে এলাকার গরিব মানুষগুলোর মুখে। অন্যদিকে তারাও এই বস্ত্র বিতরনের উদ্যোগের জন্য ধন্যবাদ জানিয়েছেন উদ্যোক্তাদের।