টিডিএন বাংলা ডেস্ক: শুক্রবার কানপুরের ৮ পুলিশ কর্মী হত্যার নায়ক বিকাশ দুবে এনকাউন্টার কাণ্ডের পর উত্তরপ্রদেশের আইন-শৃঙ্খলার সার্বিক পরিস্থিতির বিষয় নিয়ে প্রশাসনের বিরুদ্ধে ফের একবার সরব হলেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। বিকাশ দুবের এনকাউন্টার-এর পর প্রথমে তিনি টুইট করে লিখেছিলেন,”অপরাধী তো খতম কিন্তু অপরাধ ও তাতে মদতদানকারীদের কি হবে?”
এরপর টুইটারে নিজের মন্তব্যের একটি ভিডিও পোস্ট করে প্রিয়াঙ্কা গান্ধী কানপুর কাণ্ডে সুপ্রিম কোর্টের একজন বর্তমান বিচারপতির তদারকিতে তদন্তের আর্জি জানান। তিনি টুইটারে লেখেন,”উত্তরপ্রদেশের আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি ঘটেছে। রাজনৈতিক নেতা এবং অপরাধীদের গাঁটছড়া চলছে রাজ্য। কানপুর কাণ্ডে এই গাঁটছড়ার সত্যিই সামনে উঠে এসেছে। কারা কারা এ ধরনের অপরাধীর পৃষ্ঠপোষকতায় শামিল ছিলেন, সেটা সামনে আসা প্রয়োজন। সুপ্রিম কোর্টের বর্তমান বিচারপতির তদারকিতে পুরো ঘটনার জুডিশিয়াল তদন্ত হওয়া উচিত।”

ওই তুই তোর সাথে পোস্ট করা তার ভিডিও বার্তায় তিনি বলেন, বিকাশ দুবের মত অপরাধীদের যারা পৃষ্ঠপোষকতা করতেন, যারা সুরক্ষা দেওয়ার ব্যবস্থা করতেন তাদের পরিচয় সামনে আসা প্রয়োজন। তা না হলে শহীদ হওয়া ৮ পুলিশ সদস্যদের পরিবার ন্যায় বিচার পাবে না। কংগ্রেসের পূর্ব উত্তরপ্রদেশের ভারপ্রাপ্ত নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী আরো বলেন, বিজেপি উত্তরপ্রদেশকে অপরাধের রাজ্যে রূপান্তরিত করেছে। তাদের নিজেদের প্রকাশিত সরকারি পরিসংখ্যান অনুসারে, শিশুদের বিরুদ্ধে অপরাধের ক্ষেত্রে, মহিলাদের বিরুদ্ধে অপরাধে, দলিতের বিরুদ্ধে অপরাধে, অবৈধ অস্ত্রের ক্ষেত্রে, খুনের ক্ষেত্রে উত্তরপ্রদেশ শীর্ষে রয়েছে। প্রিয়াঙ্কা গান্ধী আরও বলেন,উত্তরপ্রদেশের আইন-শৃঙ্খলা ব্যবস্থার এতটাই অবনতি ঘটেছে যে বিকাশ এর মত অপরাধীরা এই পরিস্থিতিতে খুব সুন্দর ভাবেই বড় হয়ে উঠছে। তারা অপরাধ করে যাচ্ছে অথচ তাদেরকে কেউ আটকাচ্ছে না। প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর দাবি, গোটা রাজ্যে জানে তাদের রাজনৈতিক সুরক্ষা পাওয়ার বিষয়টি।

বিকাশ দুবের এনকাউন্টারের পর তার গুলিতে নিহত পুলিশ সদস্যদের পরিবারের ন্যায় বিচার পাওয়ার বিষয় নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। সমগ্র দলের পক্ষ থেকে তিনি এ দিন জানান,”কংগ্রেস দাবি করেছে সুপ্রিম কোর্টের বর্তমান বিচারক কানপুর মামলার জুডিশিয়াল তদন্ত করুন এবং পুরুষত্ব টি জনগণের সামনে তুলে ধরা হোক।”