কথা রাখলেন মুখ্যমন্ত্রী, ট্যাব-স্মার্ট ফোন কিনতে পড়ুয়াদের ১০ হাজার টাকা দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু

নিজস্ব সংবাদদাতা, টিডিএন বাংলা, কলকাতা: রাজ্যের ৯ লক্ষ দ্বাদশ শ্রেণির পড়ুয়াকে ট্যাব-স্মার্টফোন কিনতে ১০ হাজার টাকা দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু হয়ে গেল। বৃহস্পতিবার নবান্ন থেকে বোতাম টিপে ট্যাব-স্মার্টফোন কেনার জন্য ১০ হাজার টাকা করে দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। আগামী ১ সপ্তাহের মধ্যে প্রত্যেক পড়ুয়ার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে টাকা ঢুকে যাবে বলে জানান মুখ্যমন্ত্রী।

লকডাউনের সময় স্কুল কলেজ বন্ধ থাকায় শুরু হয় অনলাইন ক্লাসের পর্ব। অনলাইন ক্লাস করতে দরকার স্মার্টফোন বা কম্পিউটার, যা গরিব পরিবারের পড়ুয়াদের কাছে নেই। তাহলে কী উপায়? নিউ নর্মালে কী পড়াশোনা বন্ধ? এই সমস্যার কথা মাথায় রেখে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী ঘোষণা করেন রাজ্যের প্রত্যেক দ্বাদশ শ্রেণির পড়ুয়াকে ট্যাব দেবে সরকার। হিসেব করে দেখা যায় রাজ্যে মত ৯ লক্ষ দ্বাদশ শ্রেণির পড়ুয়া আছে। কিন্তু সমস্যা দেখা দেয় অন্য জায়গায়। চিনের কোম্পানি ছাড়া আর কোনও সংস্থার এক লপ্তে ৯ লক্ষ ট্যাব সরবরাহ করার পরিকাঠামো নেই। আবার চিনের পণ্য কেনায় সম্মতি নেই সরকারের। এই অবস্থায় পড়ুয়াদের অ্যাকাউন্টে সরাসরি ১০ হাজার টাকা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় নবান্ন। সেই মতো বৃহস্পতিবার থেকে রাজ্যের ৯ লক্ষ পড়ুয়ার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে টাকা জমার প্রক্রিয়া শুরু হয়। এই উপলক্ষে নবান্ন থেকে ভার্চুয়াল মাধ্যমে কয়েকজন পড়ুয়ার সঙ্গে কথা বলেন মুখ্যমন্ত্রী। পড়ুয়ারা মুখ্যমন্ত্রীর উদ্যোগের প্রশংসায় পঞ্চমুখ পড়ুয়ারা। মুখ্যমন্ত্রী তাঁদের শুভেচ্ছা জানান। বলেন কেউ বাদ পড়লে স্কুলে নাম নথিভুক্ত করাতে।