বিজেপি ছাড়ার হিড়িক নিয়ে নেতৃত্বের বিরুদ্ধেই সরব বিজেপির কেন্দ্রীয় সম্পাদক অনুপম

টিডিএন বাংলা ডেস্ক: একের পর এক বিজেপি নেতা দল ছেড়ে তৃণমূলে যোগদান করছেন। এবার রাজ্য বিজেপির অন্যতম প্রভাবশালী নেতা অর্জুন সিং-ও বিজেপি দল ছেড়ে তৃণমূল কংগ্রেসে যোগদান করলেন। অবস্থা দৃষ্টিতে মনে হচ্ছে যেন বিজেপি ছাড়ার হিড়িক পড়েছে দলে। আর সেই বিজেপি ছাড়ার হিড়িক নিয়ে এবার উল্টে রাজ্য নেতৃত্বের বিরুদ্ধেই সরব হলেন বিজেপির কেন্দ্রীয় সম্পাদক অনুপম হাজরা। একে একে বহু নেতাই দল ছাড়লেন, কিন্তু আত্মসমালোচনা না করে বরাবরই গা-ছাড়া মনোভাব দেখাচ্ছেন বিজেপি নেতারা। যেন সবাই দল ছেড়ে চলে গেলেও কিছুই যায় আসে যায় না তাদের। যদিও বাস্তবে তাতে বঙ্গ বিজেপির যথেষ্ট ক্ষতি হচ্ছে বলেই মনে করছেন তিনি।
এদিন সোশ্যাল মিডিয়া একটি পোস্টে তিনি লিখেছেন, ‘কেউ দল ছাড়লেই ‘এতে কোনও ক্ষতি হবে না’ বা ‘গুরুত্ব দিতে নারাজ’ বলে নিজেদের সান্ত্বনা না দিয়ে ‘ক্ষতি যে কিছুটা হয়ে গেল’ সেটা মানতে শেখা দরকার বা কেন বারবার ছেড়ে যাচ্ছে সেটা বিশ্লেষণ করা দরকার!!! কিন্তু কেউ নিতান্তই নিজের ব্যক্তি-স্বার্থ-চরিতার্থ করার বা নিতান্তই ধান্দাবাজির জন্য অন্য দলে গেলে, সেটাকে গুরুত্ব না দেওয়াই ভাল!!! বাস্তবটাকে অস্বীকার করে কোনও লাভ নেই, কারণ বর্তমান পরিস্থিতিতে যেখানে একটা কাউন্সিলর সিট জিততে কালঘাম ছুটে যাচ্ছে, সেখানে কাউন্সিলরের যথেষ্ট উপরের পদমর্যাদাসম্পন্ন কেউ ছেড়ে গেলে নিঃসন্দেহে তা দলের ক্ষতি!!! অল ইজ ওয়েল বলে নিজেকে সান্ত্বনা দেওয়াটা সিনেমাতে দেখতে ভাল লাগলেও, বাস্তবে সেটা সবসময় নাও খাটতে পারে!!’
বাবুল সুপ্রিয়র ও অর্জুন সিং-এর দলবদলের পর বিজেপির কেন্দ্রীয় সম্পাদক অনুপম হাজরার এই রকম ‘বেসুরো’ হওয়াতে ‘অন্য সুর’ দেখছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।