গীতার শ্লোক রাজ্যপালের মুখে, দিল্লিযাত্রা ধনকরের

টিডিএন বাংলা ডেস্ক : মাত্র কয়েক দিনের ব্যবধান। তারমধ্যেই ফের দিল্লি যাত্রা রাজ্যপাল জগদীপ ধনকরের। রাজধানী সফরের আগে গীতার বাণী ট্যুইটে। হঠাৎ কেন এমন ট্যুইট বার্তা? তা নিয়ে শুরু হয়েছে জোর জল্পনা।

শনিবার সকালে দিল্লি গেলেন বাংলার রাজ্যপাল। কী কারণে হঠাৎ দিল্লি যাত্রা? তা অবশ্য জানা যায়নি। দিল্লি যাত্রা নতুন কিছু না হলেও, এবারের এই সফর অন্য কারণে তাৎপর্যপূর্ণ অবশ্যই। সেটি হল, ট্যুইটারে গীতার বাণী। তিনি লিখেছেন, ‘কর্মণ্যেবাধিকারস্তে, মা ফলেষু কদাচন’, অর্থাৎ ‘কাজ করে যাও, ফলের আশা করো না।’ এখানেই শেষ নয়। রাজ্যপাল উল্লেখ করেছেন, ‘আমাদের সময়ে ভাগবত গীতা হল একটি কালোত্তীর্ণ পথপ্রদর্শক।’ ‘গীতা’ ধর্ম এবং জাতির ঊর্ধ্বে বলেও ব্যাখ্যা করেছেন তিনি। সাধারণত দিল্লি যাওয়ার আগে রাজ্যপাল সেখানে কার কার সঙ্গে দেখা করবেন সেই বিষয়টি পরিষ্কার করতেন। এবার তা নিয়ে একটি শব্দ খরচ করেন নি তিনি।

রাজ্যপালের সঙ্গে রাজ্য সরকারের মতবিরোধ বহুবার প্রকাশ্যে এসেছে। কখনও রাজ্যের আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি, কখনও রাজ্যের পুলিশের ভূমিকা নিয়ে সরব হয়েছেন ধনকর। বিধানসভা নির্বাচনের পর রাজ্যের সঙ্গে সংঘাতে জড়ান তিনি। ভোট পরবর্তী হিংসা নিয়ে সরব হয়েছেন রাজ্যপাল। এমনকী অভিযোগ উঠেছে, নিজের ইচ্ছেমতো জেলায় বেছে বেছে আহত বিজেপি কর্মীদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন ধনকর। যা নিয়ে রীতিমতো সন্তোষ প্রকাশ করেছে শাসক দল। এই পরিস্থিতিতে হঠাৎ রাজ্যপালের দিল্লি সফর বিশেষ তাৎপর্যপূর্ণ রাজনৈতিক মহল। কৌতুহল বাড়িয়েছে গীতার উদ্ধৃতি। গীতার প্রশংসা করে তাঁর উপলব্ধি, ‘কঠিন সময়ে নিষ্ক্রিয় থাকার পক্ষে কোনও অজুহাত থাকতে পারে না। এটা মানবতা এবং সভ্যতাকে কুরে কুরে খেয়ে ফেলে।’