কোভ্যাক্সিনে বাছুরের দেহরস! কংগ্রেস নেতার দাবি খারিজ করল কেন্দ্র

টিডিএন বাংলা ডেস্ক: কোভ্যাক্সিনে বাছুরের দেহরস!নিজের অফিসিয়াল ট্যুইটার হ্যান্ডেলে কংগ্রেস নেতা গৌরব পান্ধী অভিযোগ করেন ভারত বায়োটেকের তৈরি করোনার টিকায় রয়েছে বাছুরের দেহরস। নেটমাধ্যমে নিজের মন্তব্যের সমর্থনে এসম্পর্কে কয়েকটি স্ক্রিনশট তুলে ধরেন তিনি। ট্যুইট করে গৌরব লেখেন, “মোদী সরকার স্বীকার করেছে, কোভ্যাক্সিনে ২০ দিনের কম বয়সী বাছুরের দেহরস থাকে। বাছুর মেরেই তা সংগ্রহ করা হয়। এই তথ্য আগেই জানানো উচিত ছিল সরকারের। এই ঘটনায় মানুষের ভাবাবেগ আহত হতে পারে।”

তাঁর দাবি, কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের নিয়ন্ত্রণাধীন ‘ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা ড্রাগস কন্ট্রোলার জেনারেল অব ইন্ডিয়া’ (ডিসিজিআই)-র কাছে তথ্যের অধিকার আইনে (আরটিআই) বিকাশ পাটনি নামে এক ব্যক্তি এ সংক্রান্ত তথ্য জানতে চেয়েছিলেন। সংস্থার তরফে পাঠানো জবাব থেকেই বাছুরের দেহরস থাকার ‘তথ্য’ জানা গিয়েছে।

গৌরবের এই চাঞ্চল্যকর দাবির পর শোড়গোল পড়ে যায় সামাজিক মাধ্যমে। মানুষের মনের বিভ্রান্তি দূর করতে সক্রিয় হয়ে ওঠে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রক। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের তরফে গৌরবের দাবি খারিজ করে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, ভুল ভাবে তথ্য উপস্থাপিত করে কোভ্যাক্সিনে বাছুরের দেহরস থাকার দাবি করা হয়েছে। মন্ত্রকের তরফ থেকে স্পষ্ট বিবৃতি, ‘কোভ্যাক্সিনে সদ্যোজাত বাছুরের দেহরস (সিরাম) নেই।’