তালিবানের সঙ্গে গোপন বৈঠক ভারতের, পাকিস্তানের সাথে কেনো নয় প্রশ্ন মেহবুবা মুফতির

টিডিএন বাংলা ডেস্ক : আফগানিস্তান ও ভারতের রাজনৈতিক সম্পর্ক বজায় রাখতে এবার তালিবান নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করলেন দেশের বিদেশ মন্ত্রী এস জয়শঙ্কর৷ যদিও বিষয়টি নিয়ে কোনও সরকারি বক্তব্য রাখেনি কেন্দ্র৷ কিন্তু জাতীয় বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে এ নিয়ে বিস্তারিত প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়েছে। সংবাদমাধ্যমের প্রকাশিত খবর ভারতের বিদেশমন্ত্রকের পক্ষ থেকে সরাসরি কথা বলা হয়েছে তালিবান নেতাদের সঙ্গে৷

তালিবানের সাথে মোদি সরকারের আলোচনার বিষয়টি সামনে নিয়ে আসে কাতার এর জঙ্গিদমন বিভাগের বিশেষ দূত মুতলাক বিন মাজেদ আল কাতানি এক ওয়েব কনফারেন্সে জানিয়েছেন, দোহাতে তালিবানের সঙ্গে ভারতীয় আধিকারিকদের গোপন বৈঠক হয়েছে। কাতারের আধিকারিকের এহেন চাঞ্চল্যকর দাবির পরেই দেশজুড়ে শোরগোল পড়ে গিয়েছে।

সম্প্রতি কুয়েত ও কেনিয়া সফরে গিয়েছিলেন বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর। যাতায়াতের পথে তিনি দু’বার (৯ ও ১৫ জুন) দোহায় নেমেছিলেন। সেখানেই কাতারের বিদেশমন্ত্রী, সেদেশের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা এবং আফগানিস্তানে নিযুক্ত আমেরিকার বিশেষ প্রতিনিধির সঙ্গে জয়শঙ্করের বৈঠক হয়। তারপরেই কাতারের জঙ্গিদমন বিভাগের বিশেষ দূত ভারতের সঙ্গে তালিবানের সরাসরি বৈঠকের দাবি জানান। যদিও, বিদেশ মন্ত্রক এ নিয়ে কোনও প্রতিক্রিয়া জানায়নি।

ভারতীয় প্রতিনিধিদের সঙ্গে তালিবান নেতৃত্বের প্রথম বৈঠকের খবর প্রকাশ পেতেই মোদি সরকারকে একহাত নিয়েছেন জম্মু ও কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি। তিনি বলেন, কাশ্মীরে শান্তি ফেরাতে একইভাবে পাকিস্তানের সঙ্গে ভারতের বৈঠক করা উচিত। পিডিপি নেত্রী মেহবুবা মুফতি বলেন, ‘‌যদি তারা দোহা গিয়ে তালিবানের সঙ্গে কথা বলতে পারে, তাহলে কাশ্মীরে রেজোলিউশন আনার বিষয়ে আমাদের এবং পাকিস্তানের সঙ্গেও আলোচনায় বসা উচিত।’‌