“মাস্ক নেই, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার বালাই নেই”; বাংলায় কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সভায় স্বাস্থ্যবিধি নিয়ে প্রশ্ন তুললেন প্রশান্ত ভূষণ

টিডিএন বাংলা ডেস্ক: গতকালই মেদিনীপুরের এক জনসভায় অমিত শাহের হাত ধরে বিজেপিতে নাম লেখান শুভেন্দু অধিকারী। মঞ্চে উঠে গদগদ মুখে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের পায়ে হাত দিয়ে প্রণাম করছেন শুভেন্দু অধিকারী আর তাঁর পাশেই গা ঘেঁষাঘেঁষি করে দাঁড়িয়ে রয়েছেন কৈলাস বিজয়বর্গীয় সৌমিত্র খাঁ-রা। গতকালের এই ছবিটি দেশি সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে। দেশের প্রায় প্রথম সারির একাধিক খবরের চ্যানেল গুলিতেও এই ভিডিও দেখানো হয়েছে।ভিডিওতে এবং ছবিতে স্পষ্ট দেখা যাচ্ছে খোদ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ, কৈলাস বিজয়বর্গীয়, সৌমিত্র খাঁ, শুভেন্দু অধিকারী কারুর মুখেই মাস্ক নেই। এমনকি সামাজিক দূরত্ব ভিডিও এড়িয়ে গেছেন তাঁরা। এই ছবিতে হাতিয়ার করে সোশ্যাল মিডিয়ায় অমিত শাহের সভায় স্বাস্থ্যবিধি নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন সুপ্রিম কোর্টের বিশিষ্ট আইনজীবী প্রশান্ত ভূষণ।

করোনা পরিস্থিতির মধ্যেই স্বাস্থ্যবিধিকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে কিভাবে খোদ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের ভরা জনসভার আয়োজন করা হলো তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন প্রশান্ত ভূষণ। এ প্রসঙ্গে গতকালের ওই ঘটনার একটি ছবি সহ প্রতিবেদন তুলে ধরে প্রশান্ত ভূষণ টুইট করে লিখেছেন, “বাংলার নির্বাচনের আগে রাজনৈতিক নীতি-আদর্শ জলাঞ্জলি দিয়ে একাধিক দলের উচ্ছিষ্টদের এক জায়গায় নিয়ে এসেছে বিজেপি। অমিত শাহ জনসভা করছেন মাস্কে না পরে। শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখার বালাই নেই। এদিকে, করোনার অজুহাতে বিজেপির এই নেতারাই সংসদের অধিবেশন বাতিল করে দেয়। মোদি-শাহর এই জুটি দেশের গণতন্ত্রকে লাটে তুলে দিচ্ছে।”