গতিপথে পরিবর্তন, ওড়িশা হয়ে ঝাড়খণ্ডের দিকে অভিমুখ ইয়াসের

image courtesy : https://www.skymetweather.com/

নিজস্ব সংবাদদাতা, টিডিএন বাংলা, কলকাতা : ঘূর্নিঝড় ইয়াস কিছুটা বদলেছে তার গতিপথ।  তার পরেও বুধবার দুপুরে কলকাতা ও তার পার্শবর্তী এলাকায় ৬৫-৭৫ কিমি বেগে ঝোড়ো হাওয়া বইবে বলে পূর্বাভাস দিল আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর। আলিপুর আবহাওয়া দপ্তরের অধিকর্তা সঞ্জিব বন্দ্যোপাধ্যায় এক সাংবাদিক সম্মেলনে জানান, এই মুহুর্তে ইয়াস দীঘা থেকে ৩২০ কিলোমিটার দক্ষিন ও দক্ষিন পুর্ব দিকে অবস্থান করছে। যেটি ক্রমশ উত্তর পশ্চিমে এগোবে।

বুধবার দুপুরে পারাদ্বীপ ও সাগর আইল্যান্ডের মাঝখান দিয়ে বালাসোর ও উত্তর ধামড়া দিয়ে অতিক্রম করবে। যার ফলে এ রাজ্যের পুর্ব মেদনিপুর ও দক্ষিন ২৪ পরগনাতে সবথেকে বেশি প্রভাব পড়বে। এই দুই জেলা দিয়ে ৯০-১২০ কিলোমিটার গতিতে ঝড় বয়ে যেতে পারে। পাশাপশি ওই সময় জোয়ার থাকার কথাও বলেন সঞ্জিব বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বলেন, জোয়ারে সমুদ্রের ঢেউ যে স্তরে থাকে তার থেকেও ২-৪ মিটার বেশি জলোচ্ছাস দেখা দেবে সমুদ্রে। যা খুবই চিন্তার বিষয়।

আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে জানা গেছে, গত ৬ ঘণ্টা ধরে ঘণ্টায় ১৬ কিলোমিটার গতিবেগে এগোচ্ছে ইয়াস। বঙ্গোপসাগরে ইয়াস এই মুহূর্তে ১৮ ডিগ্রি ৭ মিনিট উত্তর অক্ষাংশ ও ৮৮ ডিগ্রি পূর্ব দ্রাঘিমাংশে অবস্থান করছে। এই মুহূর্তে ওড়িশার পারাদ্বীপ থেকে ২২০ কিলোমিটার দক্ষিণ দক্ষিণ-পূর্ব, ওড়িশার বালেশ্বর থেকে ৩৩০ কিলোমিটার দক্ষিণ দক্ষিণ-পূর্ব, পশ্চিমবঙ্গের দিঘা থেকে ৩২০ কিলোমিটার দক্ষিণ দক্ষিণ-পূর্ব ও সাগর দ্বীপ থেকে ৩২০ কিলোমিটার দক্ষিণ দক্ষিণ-পশ্চিমে  অবস্থান করছে ইয়াস। বুধবার দুপুরে অতি শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় রূপে ইয়াস ওড়িশার পারাদ্বীপ ও পশ্চিমবঙ্গের সাগর দ্বীপের মধ্যে ওড়িশার বালেশ্বরের দক্ষিণ ও ধামরার উত্তর দিক দিয়ে অতিক্রম করবে বলে পূর্বাভাস। তার পর ঘূর্ণিঝড় চলে যাবে ঝাড়খণ্ডের দিকে।