মেহুল চোক্সীকে ভারতের হাতে তুলে দেওয়ার আবেদন জানিয়ে ডোমিনিকাকে বার্তা পাঠাল তদন্তকারী সংস্থা

টিডিএন বাংলা ডেস্ক: পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাংকের প্রতারণা কাণ্ডের মূল অভিযুক্ত মেহুল চোক্সী ডোমিনিকায় ধরা পড়ার পর থেকেই মেহুল চোক্সীকে দেশে ফেরাতে তৎপর হয়েছে একাধিক তদন্তকারী সংস্থা। এক সর্বভারতীয় সংবাদ সংস্থার খবর অনুযায়ী, দেশের তদন্তকারী সংস্থাগুলির পক্ষ থেকে ডোমিনিকার সরকারকে বোঝানো হচ্ছে যে, মেহুল চোক্সী আদতে ভারতীয় নাগরিক হওয়া সত্ত্বেও বিপুল আর্থিক কেলেঙ্কারির হাত থেকে বাঁচতে নতুন নাগরিকত্ব নিয়েছেন। পাশাপাশি চোক্সীর বিরুদ্ধে জারি হওয়া রেড কর্নার নোটিশের প্রসঙ্গ উত্থাপন করে তাকে একজন দেশত্যাগী হিসাবেও দেখতে বলা হয়েছে। চোক্সীকে ভারতের হাতে তুলে দেওয়ার আবেদন জানিয়েছে ভারতীয় তদন্তকারী সংস্থাগুলি।

ভারতীয় তদন্তকারী সংস্থাগুলির পাশাপাশি অ্যান্টিগার তরফ থেকেও ডোমিনিকার সরকারকে আবেদন জানানো হয়েছে, মেহুল চোক্সীকে ভারতের হাতে তুলে দেওয়ার জন্য। অ্যান্টিগার প্রধানমন্ত্রী গ্যাস্টন ব্রাউনি একটি সর্বভারতীয় সংবাদ সংস্থাকে জানিয়েছেন, চোক্সীকে আর কখনই সে দেশে ঢুকতে দেওয়া হবে না। অ্যান্টিগা-বার্বুদার পুলিশ প্রধান অ্যাটলি রডনি জানিয়ে দিয়েছেন, চোক্সীকে অপহরণ করা হয়নি। এ ব্যাপারে কোনও প্রমাণ মেলেনি বলেই জানিয়েছেন রডনি।

এদিকে, ওই সর্বভারতীয় সংবাদ সংস্থার খবর অনুযায়ী, ডোমিনিকায় দিল্লির একটি বিমান দেখতে পাওয়া গেছে। এর ফলে মেহুল চোক্সীকে দেশে ফেরানোর জল্পনা তীব্র হয়েছে।